বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৯:৫১ পূর্বাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম :
আজীবন সম্মাননা পেলেন জনাব ওসমান গণি ও শফিকুর রহমান মধু মিয়া বৃষ্টির ধারায় মুছে যাক “রোজা রাখি, আল্লাহর হুকুম পালন করি, নিজে সুস্থ থাকি অপরকে সুস্থ থাকতে উৎসাহিত করি” মঙ্গলকাটা কম্পিউটার ট্রেনিং সেন্টার ‘MCTC’র এক যুগ পূর্তিতে আনন্দ ভ্রমণ ফেনিবিল ও কোনাপাড়া সমাজকল্যাণ যুব সংঘের অমর একুশে উদযাপন ‘আব্দুল গণি ফাউন্ডেশন’ মেধাবৃত্তি পরিক্ষা-২২ এর বৃত্তি প্রাপ্তদের পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত নারায়ণতলা মিশন উচ্চ বিদ্যালয়ে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগীতা অনুষ্ঠিত সুনামগঞ্জের ডলুরা বর্ডারহাটে অনিয়ম ও মাদক বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত তৃতীয় বারের মত অনুষ্ঠিত হয়ে গেলো দাখিল ২০০৪ ব্যাচ এর মিলনমেলা কোনাপাড়া সমাজকল্যাণ যুব সংঘের শীত বস্ত্র বিতরণ

পেটের ভেতর দেড় কেজি নাট-বল্টু-পেরেক

পেটের ভেতর দেড় কেজি নাট-বল্টু-পেরেক

এক ইঞ্চি লম্বা একটি লোহার পেরেক, নাট-বল্টু, সেফটি পিন, চুড়ি, ইউ-পিন, চুলের পিন, ব্রেসলেট, চেইন, মঙ্গলসুত্র ও তামার রিং। এটা কোনো হার্ডওয়্যার কিং-বা স্বর্ণালঙ্কারের দোকানের পণ্যের তালিকা নয়। এটা পাওয়া গেছে এক নারীর পাকস্থলী থেকে।

সম্প্রতি ভারতের আহমেদাবাদের একটি বেসরকারী হাসপাতালে অপারেশনের পর ওই নারীর পাকস্থলী থেকে এসব পাওয়া গেছে। এ ঘটনা নিয়ে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া একটি প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, চল্লিশোর্ধ্ব ওই নারীর নাম সঙ্গীতা। অপারেশনের আগে একটি সরকারি হাসপতালে ভর্তি ছিলেন তিনি। পেটে ব্যাথা অনুভব করায় গত ৩১ অক্টোবর তাকে ওই বেসরকারি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

প্রকৃতপক্ষে ওই নারীর জন্মস্থান ভারতের মহারাষ্ট্র প্রদেশে। অসুস্থ অবস্থায় আহমেদাবাদের শাহের কোটা নামক এলাকার একটি রাস্তা থেকে তাকে উদ্ধার করে আদালতের নির্দেশে সরকারি মানসিক হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছে তুলে দেয়া হয়।

হাসপাতালটির জ্যেষ্ঠ সার্জন ডা. নিতীন পারমার বলেন, ‘যখন তাকে এখানে নিয়ে আসা হয় দেখি তার পেট পাথরের মতো শক্ত। এক্স-রে করার পর দেখা যায় তার পেটে একটা স্তুপ। সেফটি পিন তার ফুসফুস থেকে বের হয়ে আছে আর একটা পিন তার পাকস্থলীতে ঢুকে গেছে। এটা দেখার পর খুব শীঘ্রই আমরা তার অপারেশন করি।’

আড়াই ঘণ্টার অপারেশন করার সময় একের পর এক তার পেট থেকে লোহা ও ধাতুর ধারালো বস্তু, মেয়েদের ব্যবহৃত বিভিন্ন সামগ্রীসহ আরও অনেক কিছুই বের হতে থাকে। সবি মিলিয়ে যার ওজন দাঁড়ায় প্রায় দেড় কেজি।

সরকারী ওই মানসিক হাসপাতালটির মনোরোগ বিশেষজ্ঞ অর্পণা নায়েক বলেন, ‘অপারেশনের পর সঙ্গীতাকে এখন পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে। আমরা তার ভাইয়ের খোঁজ পেয়েছি। কিন্তু তার পরিবার তাকে ফেরত নিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছে। তবে আমরা আশা করছি পরিবারের কাছে আমরা তাকে ফেরত দিতে পারবো।’


আপনার এ্যাড দিন

ফটো গ্যালালি

Islamic Vedio

বিজ্ঞাপন ভিডিও এ্যাড




© All rights reserved © 2018 angina24.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com